তুলসী পাতা দিয়ে জৈব কীটনাশক ও মাকড়নাশক তৈরি

129

তুলসী পাতা যে উপকারী তা আমরা সবাই জানি। তুলসী পাতা ভেষজ উপাদানের মধ্যে একটি অন্যতম উপাদান, তার গুণাবলী নিয়ে কথা শুরু করে শেষ করা যাবে না। সর্দি কাশি থেকে শুরু করে, এমনকি ত্বকের পরিচর্চায়ও তুলসী পাতার জুড়ি মেলা ভার। ফসলের পোকামাকড় দমনে তুলসী পাতা এখন ব্যবহৃত হচ্ছে। আমরা আজ তুলসী পাতা দিয়ে কীটনাশক ও মাকড়নাশক তৈরি পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করব। তুলসী পাতার এই জৈব কীটনাশক ফসলের পোকা দমনে যেমন কার্যকারী তেমনি পরিবেশের জন্য নিরাপদ।

উপকরণ:

১) কাঁচা তুলসী পাতা ২৫০ গ্রাম।
২) পানি ১ লিটার।
৩) সাবান গুড়া/ ডিটারজেন্ট পাউডার ৫ গ্রাম।
অথবা দুই চা চামচ লিকুইড সাবান (স্যাম্পু/ হ্যান্ডওয়াস/ ডিসওয়াস)।

বালাইনাশক প্রস্তুত প্রণালী :

প্রথমে ২৫০ গ্রাম তুলসী পাতা শিল পাটায় অথবা মিক্সার মেশিনে ভালো করে থেঁতো/পেস্ট করে নিতে হবে। ১ লিটার পানিতে মাটির পাত্রে ঐ তুলসী পাতার পেস্ট ১২ ঘন্টা/ সারা রাত ভিজিয়ে রেখে ভালো করে চটকে নিতে হবে। একটি পাতলা কাপড় দিয়ে কয়েক বার ছেঁকে নিয়ে ঐ পানিতে ৫ গ্রাম ডিটারজেন্ট পউডার অথবা ২ চা চামচ লিকুইড সাবান ভালো করে মিশিয়ে ফেলতে হবে। প্রয়োজনে কয়েকবার ছেকে নিয়ে যে কোন স্প্রেয়ারে ভরে ব্যবহার করতে হবে।

উক্ত মিশ্রনটি যে কোন লেদা পোকা ও মাকড় দমনে বিশেষ কার্যকারী। প্রয়োজনে ১০-১৫ দিন পর আবার ব্যবহার করুন।

বিঃদ্রঃ

১/ কীটনাশকটি সকালে গাছে প্রয়োগ করতে হবে। (রোদ ওঠার অাগেই)
২/ তুলসী পাতার তৈরি কীটনাশকটি সংরক্ষণ করা যাবে না।
৩/ কীটনাশক তৈরিতে মাটির পাত্র ব্যবহার করা ভাল।
৪/ গাছের উপর ও নিচের পিঠ স্প্রে করে ভিজিয়ে দিতে হবে।

লেখকঃ মো: মাহফুজুর রহমান।
কৃষি সম্পসারণ অধিদপ্তর।

ফার্মসএন্ডফার্মার/১০আগস্ট২০