তেলাপিয়া মাছের রোগ হলে যা করবেন

43

খুব সহজে চাষ করা যায় তেলাপিয়া মাছ। একটি দ্রুত বর্ধনশীল মাছ এটি। পৃথিবীব্যাপী তেলাপিয়া মাছের চাষ হয়ে আসছে প্রায় ৩০০০ বছর আগে থেকে। চাষকৃত সকল মাছের মধ্যে দ্বিতীয় স্থান দখলকারী এই মাছের উৎপাদন সবচেয়ে বেশি হয় এশিয়াতে।

আমাদের দেশে এখন তেলাপিয়া বাণিজ্যিকভাবে চাষ হচ্ছে খাঁচায়। তবে কিছু রোগে আক্রান্ত হয় খাঁচায় চাষ করা তেলাপিয়া মাছ। এবার জেনে নেওয়া যাক তেলাপিয়া রোগে আক্রান্ত হলে প্রতিকারের জন্য যা করবেন।

রোগের লক্ষণ 

বিবর্ণ হয়ে যায় মাছের কানকোর কিছু অংশ, কিছু দাগ দেখা যায় অঙ্কীয়দেশে ও স্বাভাবিকের চেয়ে কিছুটা বড় হয়ে যায় মাছের পিত্তথলী। কেবল ১০০ থেকে ৪০০ গ্রাম ওজনের মাছেই এই রোগ দেখা যায়। আক্রান্ত হওয়ার সাথে সাথেই দ্রুত মারা যায় মাছ। মৃত্যুর আগে মাছগুলো ঘোরাফেরা করে কুণ্ডলি আকারে।

যেসব কারণে তেলাপিয়া এসব রোগো আক্রান্ত হয়

কোনো অনুজীব যেমনঃ ভাইরাস, ব্যকটেরিয়া আক্রমণ করলে রোগে আক্রান্ত হয় মাছ। এছাড়া মাছ রোগাক্রান্ত হয় আশেপাশের এলাকায় অতিরিক্ত পরিমাণ রাসায়নিক সার কিংবা আগাছা নাশকের ব্যবহার ও খাঁচায় মাছের জন্য অতিরিক্ত খাবার সরবরাহ হলে।

অন্যদিকে প্রতিটি খাঁচায় মাছের অধিক ঘনত্ব থাকা, খাঁচার ভেতরের পানির পিএইচ মানের তারতম্য হওয়া ও খাঁচায় অক্সিজেন সরবরাহ কম হওয়া ইত্যাদি কারণেও মাছের রোগ দেখা দেয়।

মাছ রোগাক্রান্ত হলে যা করবেন

খাঁচায় অক্সিজেন সরবরাহ করতে হবে বেশি পরিমাণে, খাঁচায় কমাতে হবে মাছের ঘনত্ব এবং কমাতে হবে খাদ্য সরবরাহ।

এছাড়া পরিস্কার রাখতে হবে নেট, বাড়াতে হবে এন্টিবায়োটিক ডোজ ও খাঁচাগুলো আঁকাবাঁকা করে রাখা যেতে পারে সারিবদ্ধভাবে না রেখে।

ফার্মসএন্ডফার্মার/ ২৫ ডিসেম্বর, ২০২২

আরও পড়ুন- যে জাতের মুরগি বেশি দিন ধরে ডিম পাড়ে

মুরগির খামারিরা যেসব বিষয় না মানলে খরচ ও চিন্তা দুটোই বাড়ে