পোল্ট্রি খাদ্যে কাঁচা মরিচের যত উপকারিতা

37

হয়তো শুনতে অবাক লাগবে কিন্তু পোল্ট্রির জন্য কাঁচা মরিচ অনেক উপকারি। এর কি কি উপকারিতা আছে তা পয়েন্ট আকারে দেয়া হলো-

১। কাঁচা মরচ প্রচুর ভিটামিন সি আছে যা ক্ষত শুকাতে সাহায্য করে ও পালকের সুরক্ষা দেয়।
২। স্নায়ুতন্ত্র ভালো রাখে।
৩। টিউমারের বিরুদ্ধে বিশেষ করে মেরেক্স বা লিউকোসিসের বিরুদ্ধে কাজ করে।
৪। কাঁচা মরিচ খাবার হজম হতে সাহায্য করে।
৫। কাঁচা মরিচে থাকা ভিটামিন এ যা হাড়, ঠোঁট ও মিউকাস মেমব্রেনকে ভালো রাখে।
৬। গরমকালে কাঁচা মরিচ এন্টিস্টেস হিসেবে কাজ করে।
৭। মুরগির সর্দি-কাশি দূর করতে কাঁচা মরিচের এন্টি অক্সিডেন্ট গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।
৮। এটি জ্বর কমাতে কাজ করে।
৯। এটি রক্ত জমাট বাঁধতে বাধা দেয়।
১০। কাঁচামরিচ মেটাবলিজম বাড়িয়ে দেয় এবং ফ্যাটি লিভারের বিরুদ্ধে কাজ করে।
১১। রক্তের কোলেস্টেরল কমায়।
১২। কাঁচামরিচে থাকা এন্টি অক্সিডেন্ট বিটা ক্যারোটিন যা কা্রডিওভাস্কোলার সিস্টেমকে কর্মক্ষম রাখে।
১৩। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।
১৪ কাঁচা মরিচ মস্তিস্কে এন্ডোফিন নামক হরমোনের নিঃসরণ বাড়ায় ফলে মুরগি প্রাণবন্ত থাকে।
১৫। আয়রনের ঘাটতি দূর করে।
১৬। মুরগির হার্ট ভালো রাখে।
১৭। মুরগিকে চকচকে ঝকঝকে রাখে।

ডোজঃ প্রতি ১০০০ মুরগির জন্য-
১০০-২৫০গ্রাম করে ৫-৭ দিন, বয়স অনুযায়ী কম বেশি হবে্।
এমনিতেও মাসে ৩-৫দিন দেয়া যায় বিশেষ করে গরমে ও শীতে।
কাঁচা মরিচ ব্লেন্ডারে দিয়ে পেস্ট করে বা বেটে দেয়া যায়।
শুকনা মরিচ ও মুরগিকে খাওয়ানো যায়।